Homeঅন্যান্যরবিবারেই কেন ছুটি থাকে ভারতে? জেনে নিন সেই ইতিহাস।

রবিবারেই কেন ছুটি থাকে ভারতে? জেনে নিন সেই ইতিহাস।

কেন রবিবার ভারতে ছুটির দিন?

(Why is Sunday a holiday in India?)

রবিবার মানেই ছুটির দিন। সরকারি, বেসরকারি কর্মী সকলেই বাড়িতে সেদিন বিশ্রাম নেন এবং আনন্দ,মজা করে দিনটি উপভোগ করেন। তবে আপনাদের মনে কখনো প্রশ্ন আসেনি যে, রবিবারেই কেন ছুটির দিন হিসাবে দেওয়া হয় ভারতে? (Why is Sunday a holiday in India?)  কবে থেকে রবিবার কে ছুটির দিন হিসেবে গণ্য করা হয়? কেনই বা এমন নিয়ম প্রচলিত হয়েছিল?

রবিবারকে ছুটির দিন হিসেবে গণ্য করা শুরু হয় সেই ব্রিটিশ আমল থেকে। তবে রবিবারকে ছুটির দিন হিসেবে পাওয়া বিষয়টি এতটা সহজ ছিল না। এর জন্য অনেকটা লড়াই করতে হয়েছে।

প্রায় ২০০ বছর ব্রিটিশরা ভারতের রাজত্ব করেছিল। সাম্রাজ্য বিস্তারের জন্য দেশে অনেক কলকারখানা, কারখানা তৈরি করেন ব্রিটিশরা।সে সময় কারখানার শ্রমিকদের সপ্তাহের সাত দিনই কাজ করতে হতো এবং শ্রমিকদের জন্য কোন আলাদা ছুটি থাকত না। তবে ব্রিটিশ কর্মচারীরা প্রতি রবিবার গির্জায় গিয়ে প্রার্থনা করতেন। এই বিষয়টি মেনে নিতে পারেননি তখনকার শ্রমিক নেতা শ্রী নারায়ন মেঘাজি লোখন্ডে ।

See also  বাংলা পাবে আরো MBBS আসন! পাবে মেডিক্যাল কলেজও।

শ্রী নারায়ন মেঘাজি লোখন্ডে ব্রিটিশ অফিসারদের বলেন সপ্তাহের ছয় দিন কাজ করানোর জন্য। এবং সপ্তাহে একদিন কর্মচারীদের ছুটি দেওয়ার প্রস্তাব দেন তিনি। ব্রিটিশরা যেহেতু ঐদিন গির্জায় গিয়ে প্রার্থনা করতেন তেমনভাবে তিনি একটি কারণ উপস্থাপন করেন।তিনি বলেন রবিবার দিনটি হিন্দু দেবতা খন্ডকার এর জন্মদিন। এই জন্য ওই দিনটিকে ছুটির দিন হিসেবে বিবেচনা করা হোক।

ওনার এই প্রস্তাব ব্রিটিশ সরকার সহজে মেনে নিতে পারেনি। কিন্তু তিনি এখানেই থেমে থাকেননি কর্মীদের ছুটির জন্য আরও সাত বছর লড়াই করেন। অবশেষে তার প্রস্তাবকে মান্যতা দিয়ে ১৮৯০ সালের ১০জুন শ্রমিকদের ছুটি ঘোষণা করে ব্রিটিশ সরকার। ওনার কারণেই মাসের ১৫ তারিখে বেতন এবং খাওয়ার জন্য আধঘন্টা সময় চালু করা হয়।

ব্রিটিশরা দেশ থেকে চলে গেলেও সেই নিয়ম আর বদলায়নি। তারপর ১৮৯০ সাল থেকেই প্রত্যেক সপ্তাহের রবিবার করে ছুটির দিন চলে আসছে।

শ্রী নারায়ন মেঘাজি লোখন্ডের কাছে আমাদের সকলের কৃতজ্ঞ থাকা উচিত। উনি না থাকলে হয়তো এখনকার দিনেও সপ্তাহের সাত দিনই চলতো স্কুল ,কলেজ, সরকারি অফিস এবং কার্যালয়। এবং মানুষের হাতে অবসর সময় বলতে কিছুই থাকতো না।

See also  বাংলা পাবে আরো MBBS আসন! পাবে মেডিক্যাল কলেজও।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

RELATED ARTICLES

Most Popular