HomeEducation Newsপ্রাথমিকের ইন্টারভিউ সংক্রান্ত গুরুত্বপূর্ণ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করল পশ্চিমবঙ্গ প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদ।

প্রাথমিকের ইন্টারভিউ সংক্রান্ত গুরুত্বপূর্ণ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করল পশ্চিমবঙ্গ প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদ।

প্রাথমিকে ইন্টারভিউ সংক্রান্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি নোটিফিকেশন প্রকাশ করল পশ্চিমবঙ্গ প্রাথমিক শিক্ষা পরিষদ (West Bengal Board Of Primary Education) প্রাথমিকের ইন্টারভিউ এর ষষ্ঠ ফেজের ইন্টারভিউ (Primary Tet Interview) এর নোটিফিকেশন প্রকাশ করা হলো সম্প্রতি।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে পূর্ব বর্ধমান জেলার জন্য যে সমস্ত প্রার্থীরা শিক্ষক পদে আবেদন করেছিলেন, তাদের ইন্টারভিউ নেওয়া হবে। এবং অন্যান্য জেলার প্রার্থীদের ইন্টারভিউ প্রক্রিয়া পরবর্তীতে ধাপে ধাপে নেওয়া হবে। প্রাথমিকে শিক্ষক নিয়োগের ষষ্ঠ ফেজের বিজ্ঞপ্তি নেওয়া শুরু হবে আগামী ২৩ ফেব্রুয়ারি থেকে।

প্রাথমিক শিক্ষা পরিষদের সভাপতি গৌতম পাল জানিয়েছিলেন যে, বছরের মোট ২ বার নিয়োগ করা হবে প্রাথমিকে। ইতিমধ্যে আবেদন প্রক্রিয়া সম্পূর্ণ হয়েছে এবং ৪০ হাজারেরও বেশি প্রার্থী শিক্ষক পদের জন্য আবেদন করেছে।

প্রাথমিক নিয়োগে দুর্নীতি ঠেকাতে তৎপর হয়েছে প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদ। ইন্টারভিউ এর সময় অনেকগুলি নিয়মে পরিবর্তন করা হয়েছে এবং বেশ কিছু নজিরবিহীন পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে শিক্ষা পর্ষদের তরফ থেকে। এবার থেকে ইন্টারভিউ এর সময় থাকবে চক ডাস্টার। যে সমস্ত প্রার্থীরা ইন্টারভিউ দিতে আসবেন , তাদেরকে ক্লাস নিতে হবে এবং প্রত্যেক পরীক্ষক যা যা নম্বর দেবেন সেই নাম্বার চলে যাবে সরাসরি প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের সার্ভারে। এরই সাথে সমগ্র ইন্টারভিউ প্রক্রিয়ার ভিডিওগ্রাফিও (Primary Tet Interview Videography) করা হবে, যাতে করে প্রার্থীরা পরবর্তীতে কোনরকম অভিযোগ করলে পর্ষদের তরফ থেকে সেই ভিডিও দেখানো যেতে পারে।

See also  পরীক্ষার পরের দিনই বাতিল পরীক্ষা! জালিয়াতির তদন্ত করবে CBI! জানুন বিস্তারিত।

বর্তমানে অনেক স্কুলের অনেক শিক্ষকের নামে অভিযোগ করা হয় যে তারা ভালো করে ক্লাস নিতে পারেন না ।এজন্য ইন্টারভিউ প্রক্রিয়ার সময় আগেভাগেই পরীক্ষকরা দেখে নিচ্ছেন যে প্রার্থীর মধ্যে ভালোভাবে ক্লাস নেওয়ার যোগ্যতা রয়েছে কিনা।

সমস্ত পরীক্ষকরা একজন প্রার্থীকে যা নাম্বার দেবেন, সেই নাম্বারের গড় করে সেই নাম্বারের ভিত্তিতে প্রার্থীকে নিয়োগ করা হবে। এই জন্য ধারণা করা যাচ্ছে যে আগামী দিনে শিক্ষক নিয়োগে দুর্নীতি অনেকটাই কমে যাবে এবং সঠিক মেধা সম্পন্ন প্রার্থীরা শিক্ষকতার চাকরি পাবেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

RELATED ARTICLES

Most Popular